চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সালমা-রুমানাদের বোনের চোখে দেখেন সানা

কক্সবাজার থেকে: বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের পথচলার শুরুটা দেখেছেন সানা মীর। পাকিস্তানি এ অফস্পিনারের বোলিংয়ের সামনে বহুবার হোঁচট খেয়েছে টিম টাইগ্রেস। শুরুর সময়ের সঙ্গে এখন অবশ্য বিস্তর ব্যবধান। সেটি গত এশিয়া কাপেই দেখেছে পাকিস্তানিরা। বাংলাদেশ দলের রাতারাতি উন্নতির প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে ওয়ানডে র‌্যাঙ্কিংয়ে শীর্ষ পাঁচে থাকা অলরাউন্ডার সানা জানালেন, সালমা-রুমানাদের বোন ভাবেন তিনি, বাংলাদেশের এগিয়ে যাওয়া দেখলে খুশিও হন।

বিজ্ঞাপন

কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে তখন বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজের প্রথম টি-টুয়েন্টি পরিত্যক্ত ঘোষণা করেছেন ম্যাচ রেফারি। তল্পিতল্পা নিয়ে মাঠ ছাড়ার আগে সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে সানা মীর জানিয়ে গেলেন টিম টাইগ্রেস সম্পর্কে নানা ইতিবাচক কথাই।

বিজ্ঞাপন

‘এশিয়া কাপে বাংলাদেশ যখন আমাদের হারাল, তখন সালমা-রুমনাদের কাছে গিয়ে অভিবাদন জানিয়েছিলাম। ওরা যেভাবে খেলছে সেটি অন্যদের জন্য অনুপ্রেরণা। আমি ভাগ্যবান বাংলাদেশের মেয়েদের ক্রিকেট শুরুর সময়টা দেখেছি। অল্প সময়ে তারা যে উন্নতি করেছে, সেটা অবিশ্বাস্য। আমি সালমা-রুমানাদের বোনের চোখে দেখি।’

‘ভাবতে ভালো লাগে যে এশিয়ার আরেকটি শক্তি এখন বাংলাদেশ। একজন ক্রিকেটার হিসেবে, একজন এশিয়ান হিসেবে বাংলাদেশের উন্নতি দেখে আমি সত্যিই খুব খুশি। শুধু এশিয়ার মধ্যে নয়, দলটি বিশ্বকাপেও ভালো কিছু করবে সে আশা রাখি এবং শুভ কামনা জানাই।’ যোগ করেন সানা।

গত জুনে মালয়েশিয়ায় হওয়া এশিয়া কাপে পাকিস্তানকে ৭ উইকেটে হারিয়ে দারুণ একটি মোমেন্টাম পায় বাংলাদেশ। সালমা-রুমানারা সেটি ধরে রেখে ভারতকে হারিয়ে শিরোপা নিয়েই ফেরে। পরে আয়ারল্যান্ড সফর ও টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপের বাছাইপর্বেও সাফল্য আনে। ধারাবাহিক সাফল্যের মধ্যে থাকা দলটি ঘরের মাঠে পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ করে আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে যেতে চায় বিশ্বকাপের মঞ্চে।