শৈলকুপায় গ্রামবাসীদের সংঘর্ষে এক গৃহবধূ নিহত

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষে সুফিয়া খাতুন (৫৫) নামের এক গৃহবধূ নিহত হয়েছে।

সোমবার সকালে শৈলকুপা উপজেলার ৬নং সারুটিয়া ইউনিয়নের ভাটবাড়িয়া গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। নিহত গৃহবধূ ভাটবাড়িয়া গ্রামের জালাল উদ্দিনের স্ত্রী।  সংঘর্ষে আরো ৫ জন আহত হয়। সংঘর্ষকারীরা স্থানীয় আওয়ামী লীগের কর্মী সমর্থক বলে জানায় গ্রামবাসীরা।

স্থানীয়রা জানায়, ৬ং সারুটিয়া ইউনিয়নে দীর্ঘদিন যাবত বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল হাসান মামুন ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি জুলফিকার কায়সার টিপুর মধ্যে বিরোধ চলে আসছে। এ বিরোধকে কেন্দ্র করে উভয় গ্রুপের সমর্থকরা সোমবার সকালে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পরে। এ সময় প্রতিপক্ষের হামলায় জালাল উদ্দিনের স্ত্রী সুফিয়া খাতুন ঘটনাস্থলেই নিহত হন। আহত হন আরো ৫ ব্যক্তি।

শৈলকুপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর আলম বলেন, এ ঘটনায় ৩ জনকে পুলিশ আটক করেছে।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.