রপ্তানি মূল্যের ০.০৩ শতাংশ কল্যাণ তহবিলে জমা দেয়ার পুনঃনির্দেশ

শতভাগ রপ্তানিমুখী তৈরি পোশাক শিল্পের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের লিয়েন ব্যাংকে যে সকল এলসি নগদায়ন করা হবে তা থেকে মোট রপ্তানি মূল্যের ০.০৩% শতাংশ সোনালী ব্যাংকের রমনা কর্পোরেট শাখায় জমা দেয়ার জন্য পুনঃনির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এই অর্থ শতভাগ রপ্তানিমুখী পোশাক শ্রমিকদের নগদ সহায়তায় হিসেবে ব্যয় করা হয়।

সোমবার বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রা নীতি বিভাগ থেকে এ বিষয়ে একটি প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।

প্রজ্ঞাপনের চিঠি দেশে বৈদেশিক মুদ্রায় লেনদেনে নিয়োজিত সকল অনুমোদিত ডিলারদের পাঠানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনার সূত্রে জারিকৃত নির্দেশনায় শতভাগ রপ্তানিমুখী তৈরি পোশাক শিল্প প্রতিষ্ঠানের প্রতিটি কার্যাদেশের বিপরীতে প্রাপ্ত এবং নগদায়নকৃত রপ্তানি মূল্যের ০.০৩% হারে অর্থ কর্তন করে অধিকাংশ ব্যাংকই সোনালী ব্যাংকের রমনা কর্পোরেট শাখায় জমা দিয়ে আসছে। সম্প্রতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে কিছু ব্যাংক নির্দেশনাটি মানছে না। তাই নতুন করে প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে ব্যাংকগুলোকে সতর্ক করল কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

শতভাগ রপ্তানীমুখী শিল্প কারখানায় কর্মরত কোন শ্রমিক কর্মক্ষেত্রে দুর্ঘটনাজনিত কারণে অথবা পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে রোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করলে অথবা পরবর্তীতে মৃত্যু ঘটলে অথবা কর্মক্ষেত্রে দুর্ঘটনাজনিত কারণে অথবা পেশাগত দায়িত্বরত অবস্থায় রোগে আক্রান্ত হয়ে স্থায়ী অক্ষমতা ঘটলে সংশ্লিষ্ট শ্রমিক বা তার উপযুক্ত উত্তরাধিকারীকে ৩ লাখ টাকা অনুদান প্রদান করা হয়।

এছাড়া কোন শ্রমিক চাকরিরত অবস্থায় অসুস্থ হয়ে বা কর্মক্ষেত্রের বাহিরে কোন দুর্ঘটনায় মৃত্যুবরণ অথবা স্থায়ীভাবে অক্ষম হয়ে গেলে তিনি বা তার উপযুক্ত উত্তরাধিকারীকে ২ লাখ টাকা; কোন শ্রমিক কর্মকালীন দুর্ঘটনায় পতিত হয়ে তার কোন অঙ্গহানি ঘটলে যা স্থায়ী অক্ষমতার কারণ নয় তাহলে তাকে অনধিক এক লাখ টাকা দেয়া হয়। শ্রমিকের মেধাবী সন্তানের শিক্ষার ক্ষেত্রে (এসএসসিতে জিপিএ-৪.৫ বা তদূর্ধ প্রাপ্ত) ২০ হাজার টাকা শিক্ষা বৃত্তি প্রদানসহ শতভাগ রপ্তানীমুখী শিল্প খাতে কর্মরত মহিলা শ্রমিকের মাতৃত্ব কল্যাণে অনধিক ২৫ হাজার টাকা আর্থিক অনুদান প্রদান করা হয়।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.