চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

যৌন হেনস্তা নিয়ে এবার প্রতিবাদী আমির খান

যৌন হেনস্তার প্রতিবাদে এখন সরব পুরো বলিপাড়া। সম্প্রতি  অভিনেতা নানা পাটেকারের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগ তোলেন অভিনেত্রী তনুশ্রী দত্ত। আর এরপর থেকেই এ বিষয়ে মুখ খুলতে শুরু করেন একের পর একজন। সম্প্রতি এই ‘#মি টু’ আন্দোলনে শরীক হয়ে প্রতিবাদ জানিয়েছেন বলিউডের ‘মি. পারফেকশনিস্ট’ খ্যাত আমির খান।

বিজ্ঞাপন

জানা গেছে, বলিউড পরিচালক সুভাষ কাপুরের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ এনেছিলেন অভিনেত্রী গীতিকা ত্যাগী। আর সেই পরিচালকের সঙ্গেই কাজ করার কথা ছিল আমির খানের। গুলশান কুমারের বায়োপিক ‘মোগুল’ পরিচালনা করার কথা ছিল সুভাষের। তবে ধারণা করা হচ্ছে, অভিযোগ জানার পরই সেই বায়োপিক থেকেই সরে দাঁড়িয়েছেন মিস্টার পারফেকশনিস্ট।

এ বিষয়ে টুইটারে আমির খান ও কিরণ রাও এক যৌথ বিবৃতিতে লেখেন, ‘দুই সপ্তাহ আগে যখন #মি টু আন্দোলন শুরু হয়, তখন আমরা লক্ষ্য করি এমন একজনের সঙ্গে কাজ শুরু করতে যাচ্ছি যার বিরুদ্ধে যৌন হেনস্তার অভিযোগ রয়েছে। এ বিষয়ে খোঁজ নিয়ে জেনেছি, বিষয়টি বিচারাধীন আছে। আমরা তদন্তকারী এজেন্সি নই। আমরা কারো বিষয়ে কথাও বলব না, এটি পুলিশ ও বিচার বিভাগের কাজ। কারো বিষয়ে কোনো মন্তব্য না করে এবং এই অভিযোগ নিয়ে কোনো সমাধানে না এসে আমরা সিনেমাটি থেকে সরে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

এদিকে আমিরের এই বক্তব্যের পর সুভাষ কাপুর এক বিবৃতিতে বলেন, ‘আমি আমির খান ও কিরণ রাওয়ের সিদ্ধান্তকে সম্মান জানাচ্ছি। যেহেতু বিষয়টি বিচারাধীন রয়েছে আমি আদালতের মাধ্যমেই নিজেকে নির্দোষ প্রমাণের চেষ্টা করব।