চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

যুক্তরাষ্ট্রে ভিসা আবেদনে লাগবে ফেসবুক-টুইটারের তথ্য

এখন থেকে যুক্তরাষ্ট্রে ভিসা আবেদন করতে হলে প্রায় সব আবেদনকারীকে তাদের ফেসবুক-টুইটারসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের তথ্য দিতে হবে।

বিজ্ঞাপন

দেশটির পররাষ্ট্র বিভাগ প্রণীত নতুন আইনের অংশ হিসেবে এ ঘোষণা দেয়া হলো।

শনিবার পররাষ্ট্র বিভাগ প্রকাশিত এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, এখন থেকে যুক্তরাষ্ট্রের ভিসা আবেদনে অন্তত ৫ বছর ধরে ব্যবহার করা ই-মেইল, ফোন নম্বর এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের তথ্য যুক্ত করতে হবে।

বিজ্ঞাপন

মার্কিন সরকার জানিয়েছে, নাগরিকদের সুরক্ষা ও অভিবাসন প্রক্রিয়াকে ঝুঁকিমুক্ত করতে তারা এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

গত বছর প্রথম এই আইনটি প্রণয়নের প্রস্তাব করা হয়েছিল। ওই সময়ই বিভাগ কর্তৃপক্ষ হিসেব করে বের করেছিল,পাস হলে বছরে আনুমানিক এক কোটি ৪৭ লাখ মানুষ এর ফলে প্রভাবিত হবে।

বিবিসি জানিয়েছে, কূটনৈতিক ও বিশেষ ভিসার ক্ষেত্রে এ বিষয়ে শৈথিল্য থাকবে। তবে শিক্ষা বা কর্মসংস্থানের জন্য যুক্তরাষ্ট্র যেতে ইচ্ছুক আবেদনকারীদের এসব তথ্য দিতেই হবে।

পররাষ্ট্র বিভাগ বলেছে, ‘মার্কিন নাগরিকদের সুরক্ষার জন্য আমরা ক্রমাগত আমাদের স্ক্রিনিং প্রক্রিয়ার উন্নয়নের চেষ্টা করছি, যুক্তরাষ্ট্রে সবার ভ্রমণ বৈধ ও আইনানুগ হয়।’

এর আগ পর্যন্ত শুধু চিহ্নিত কিছু দেশের নাগরিকদের জন্যই এই অতিরিক্ত তথ্য দেয়া লাগত; যেমন যেসব দেশে সন্ত্রাসী বা জঙ্গি গোষ্ঠীর নিয়ন্ত্রণ রয়েছে সেসব দেশ থেকে যুক্তরাষ্ট্রে ভিসা আবেদন করলে এসব তথ্য দিতে হয়।