চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

মাংস বিক্রি নিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সংঘর্ষে আহত ২০

ঈদের ছুটিতে গরুর মাংস বেচাকেনা নিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর ও সরাইল উপজেলার দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষে অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শীদের জানায়, গরুর মাংস কেনার সময় হাড়ের ভাগ বেশি দেয়াকে কেন্দ্র করে কথা কাটাকাটির জেরে ঘটনাটি সংঘর্ষে রূপ নেয়।

শুক্রবার সকাল ১০টার দিকে সরাইল বিশ্বরোড এলাকায় সদর উপজেলার খাঁটিহাতা ও সরাইল উপজেলার কুট্টাপাড়া গ্রামের লোকজনদের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

বিজ্ঞাপন

সংঘর্ষ চলাকালে কুমিল্লা-সিলেট এবং ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে অন্তত দেড় ঘণ্টা যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকে। তাৎক্ষণিকভাবে আহতদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি। আহতদের ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

বিজ্ঞাপন

সরাইল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মফিজ উদ্দিন জানান: আজ সকালে খাটিঁহাতা বিশ্বরোড মোড় বাজারে কুট্টাপাড়া এলাকার ধন মিয়া মাংস কিনতে যান। এ সময় মাংসের বদলে হাড়ের পরিমাণ বেশি দেয়া নিয়ে ক্রেতা-বিক্রেতার মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এ নিয়ে দু’পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এতে উভয়পক্ষের অন্তত ২০ জন আহত হওয়ার কথা শুনেছি।

পরে ঘটনার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পুনরায় সংঘর্ষ এড়াতে ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

খাঁটিহাতা হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হোসেন সরকার জানান: সংঘর্ষ চলাকালে প্রায় একঘণ্টা যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকে। খবর পেয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানা ও সরাইল থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে রাবার বুলেট ও টিয়ার গ্যাস ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পুলিশের ঘন্টাব্যাপী চেষ্টার পর পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। মহাসড়কে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে।