চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ভারত ম্যাচের পরই পরিবার পাশে পাবেন আমির-মালিকরা

বিশ্বকাপের পুরো সময় স্ত্রী এবং পরিবারের সঙ্গে ক্রিকেটাররা থাকতে পারবেন না, এই নীতি থেকে কিছুটা সরে এসেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। শনিবার দেশটির বোর্ডের নতুন নির্দেশ, ১৬ জুন সাউদাম্পটনে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের পর ক্রিকেটাররা তাদের স্ত্রী এবং পরিবারের সঙ্গে থাকতে পারবেন।

বিজ্ঞাপন

এরইমধ্যে, মেয়ের অন্ত্যেষ্টি ক্রিয়ার পর দলের সঙ্গে যোগ দিতে ইংল্যান্ডে উড়ে গেছেন আসিফ আলি। আসিফের ১৯ মাসের মেয়ে দুয়া ফতেমাকে কেড়ে নিয়েছে ক্যান্সার। আসিফ বলেছেন, ‘আমার শক্তি এবং অনুপ্রেরণা ছিল ও। ওর স্মৃতি চিরকাল আমার হৃদয়ে থাকবে। আমার মেয়ে দুয়া ফতেমা একজন সত্যিকারের যোদ্ধা।’

বিজ্ঞাপন

পাকিস্তান এবারের বিশ্বকাপ অভিযান শুরু করবে ৩১ মে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে। এরপর ৩ জুন ইংল্যান্ড, ৭ জুন শ্রীলঙ্কা, ১২ জুন অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ম্যাচ। তারপর চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের সঙ্গে টক্কর। বিশ্বকাপের শুরু থেকে স্ত্রী ও পরিবারের সঙ্গে থাকার অনুমতি দেয়া হয়েছে শুধু আসিফ ও হারিস সোহেলকে।

আসিফের ব্যাপারটা না হয় বোঝা গেল। কিন্তু কেন সোহেলকে? সে প্রশ্নের পরিষ্কার ব্যাখ্যা দেয়া হয়নি। ব্যক্তিগত কারণে পাকিস্তান বোর্ড তাকে অনুমতি দিয়েছে।

ইংল্যান্ডে বিশ্বকাপ যেসব দল খেলছে, তারা কী করছে, সেটা দেখার পরই পিসিবি তাদের সিদ্ধান্ত খানিক বদলায় বলে দেশটির সংবাদ মাধ্যমগুলো জানাচ্ছে।