চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ভাগ্যাহত মানুষের জন্য কিছু করতে চেয়েছিলেন অবিন্তা

রাজধানীর প্রগতি স্মরণিতে অবিন্তা কবির ফাউন্ডেশনের আনুষ্ঠানিক কার্যালয় উদ্বোধন করা হয়েছে। গত শনিবার এই কার্যালয় উদ্বোধন করা হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে কুটনীতিক, শিক্ষাবিদ, বুদ্ধিজীবীসহ নানা শ্রেণি পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

বিজ্ঞাপন

গত বছর আলোচিত হলি আর্টিজান সন্ত্রাসী হামলায় নিহত হন অবিন্তা কবির। তার স্মৃতিকে অমর করে রাখার জন্য চলতি বছরের ৪ মার্চ তার নামে ফাউন্ডেশনের যাত্রা শুরু হয়।

সমাজের বিশেষ করে ভাগ্যাহত মানুষের জন্য কিছু করতে চেয়েছিলেন অবিন্তা। দাঁড়াতে চেয়েছিলেন অসহায় মানুষের পাশে। তার সেই স্বপ্নকে বাস্তবে রূপ দিতেই এই ফাউন্ডেশন গঠিত হয়। সমাজে শিক্ষা বঞ্চিত শিশু, এসিড আক্রান্ত নারী, অ্যাথলেট ও দরিদ্র পরিবারের জন্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে ফাউন্ডেশন।

বিজ্ঞাপন

অনুষ্ঠানে ফাউন্ডেশন সম্পর্কে অবিন্তার মা রুবা আহমেদ বলেন, সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্য এ পর্যন্ত তারা সাতটি স্কুল প্রতিষ্ঠা করেছেন যার মধ্যে মেয়েদের জন্য একটি স্কুল রয়েছে। এছাড়া এসিড আক্রান্তদের তারা সাহায্য করেছেন। বৃক্ষরোপণ প্রকল্প চালু করেছেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অবিন্তা কবির নামে সাইবার সেন্টারও রয়েছে।

অনুষ্ঠানে রুবা আহমেদ বাংলাদেশ ও প্রতিবেশি দেশের ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য অক্সফোর্ডের ইমোরি বিশ্ববিদ্যালয়ে বৃত্তির ঘোষণা দেন। এছাড়া বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা হ্যাবিটেট ফর হিউমিন্যাটি সাথে ঢাকার আশেপাশে সুবিধাবঞ্চিতদের জন্য ১২টি বাড়ি নির্মাণ ও নারীদের জন্য দুই বছরের ফেলোশিপ প্রোগাম চালুর পরিকল্পনার কথা জানান।

আবেগাপ্লুত বক্তৃতায় তিনি হলি আর্টিজানে অবিন্তার সাথে নিহত তারিশি জৈন ও ফারাজ আইয়াজ হোসেনের কথাও স্মরণ করেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন মার্কিন দূতাবাসের কনস্যুল জেনারেল শ্যারন আন ওয়েবার, ইত্তেফাক গ্রুপ অব পাবলিকেশন্সের নির্বাহী পরিচালক ও ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক তাসমিমা হোসেন, মানুষের জন্য ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক শাহিন আনাম, এলিগ্যান্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান মঞ্জুর মোরশেদ প্রমুখ।