চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ফিট নন তাসকিন!

নিজেকে শতভাগ ফিট দাবী করেই ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ খেলতে নামেন তাসকিন আহমেদ। অথচ বিশ্বকাপ দল ঘোষণার পর জানা গেল পুরোপুরি ফিট নন এ পেসার। তাকে বিশ্বকাপ দলে না রাখার কারণ হিসেবে প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন সামনে আনলেন চোট পরবর্তী ফিটনেসের ঘাটতিকে।

বিজ্ঞাপন

গোড়ালির চোটে আড়াই মাস মাঠের বাইরে থাকার পর প্রিমিয়ার লিগে ফিরে প্রচুর শর্ট বল করেন তাসকিন। লেন্থ দুর্বল হওয়ায় গতির ফায়দা নেয় প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানরা। লো-স্কোরিং ম্যাচে খরুচে বোলিংয়ের পর প্রশ্ন ওঠে তার ম্যাচ ফিটনেস নিয়ে। ৫ ওভারে দেন ৩৬ রান। পরের ম্যাচে তাকে একাদশেই রাখেনি শিরোপা জয়ের পথে থাকা লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ।

প্রত্যাবর্তনের ম্যাচে তাসকিন নির্বাচকদের সন্তুষ্ট করতে না পারলেও তার পথ বন্ধ হয়ে যাচ্ছে না। মিনহাজুল আবেদীন জানিয়ে রাখলেন ফিট হয়ে ফর্ম ফিরে পেলে তাকে বিবেচনা করার সুযোগ আছে, যেহেতু ২২মে পর্যন্ত দলে পরিবর্তন আনার সুযোগ রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

দল ঘোষণা করছেন মিনহাজুল আবেদিন (ছবি: ওবায়দুল হক তুহিন)

‘তাসকিন কিন্তু ২০১৭ সালের ২২ অক্টোবর সবশেষ ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছে। পরে লম্বা বিরতি। নিউজিল্যান্ড সফরের জন্য চিন্তা করেছি, কিন্তু আবার চোটে পড়েছে। এখন পর্যন্ত পুরোপুরি ফিট না, ফিজিও রিপোর্ট অনুযায়ী। তাসকিনকে স্কিল ফিট হিসেবে চাচ্ছিলাম। একটা ম্যাচ খেলেছে লিগে, তবে ফিটনেস আপ টু দ্য মার্ক না। যেহেতু সময় আছে, যদি ফিট হয়ে যায় দরকার হলে ব্যাকআপ হিসেবে আমরা রাখব।’

গত ১ ফেব্রুয়ারি বিপিএলে সিলেট সিক্সার্সের শেষ ম্যাচে ফিল্ডিং করার সময় গোড়ালিতে চোট পান তাসকিন। ছিঁড়ে যায় লিগামেন্ট। বিপিএলে দুর্দান্ত ছন্দে থাকা এ পেসার ছিটকে যান নিউজিল্যান্ড সফরের দল থেকে।

দীর্ঘসময় মাঠের বাইরে থাকায় তাসকিনের সম্ভাবনা কমে গিয়েছিল আগেই। বিকল্প হিসেবে শোনা যাচ্ছিল শফিউল ইসলামের নাম। তবে শেষমুহুর্তে স্বপ্নের বিশ্বকাপ দলে চমক হিসেবে এসেছেন আবু জায়েদ রাহি। বিপিএল ও প্রিমিয়ার লিগে ধারাবাহিকতার পুরস্কার পেয়েছেন সিলেটের এ পেসার।

ইংল্যান্ডের কন্ডিশন বিবেচনায় বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দলে রাখা হয়েছে পাঁচ পেসার। মাশরাফী, মোস্তাফিজ, রুবেল, রাহির সঙ্গে পেস অলরাউন্ডার সাইফউদ্দিন আছেন স্কোয়াডে।