চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

পণ্য প্যাকেটজাতে জনপ্রিয় হচ্ছে কলা পাতার ব্যবহার

প্লাস্টিকের একক ব্যবহার যে কত ক্ষতিকর সেই তথ্য ইতোমধ্যে অনেক আলোচনার জন্ম দিয়েছে। ২০১৬ সালে পৃথিবীতে ৩৫ মিলিয়ন মেট্রিক টনের বেশি প্লাস্টিক উৎপাদিত হয়েছেে এবং এর অর্ধেকই একক ব্যবহারের জন্য। যেমন, প্যাকেটজাতকরণের প্লাস্টিক পণ্য, প্লাস্টিকের বোতল এবং স্ট্র।

বিজ্ঞাপন

এসব উপাদান আমাদের পরিবেশে হাজার বছরের বেশি সময় থেকে যাবে। বিজ্ঞানীদের ধারণা, ২০৫০ সালের মধ্যে সমুদ্রে মাছের চেয়ে প্লাস্টিকের পরিমান বেশি থাকবে।

গিভ ইট লাভ ডটকম জানায়, এই তথ্য কতটা ভয়াবহ তা আন্দাজ করাই যায়। কিন্তু যদি প্রত্যেকের ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা এ অবস্থার পরিবর্তন ঘটাতে পারে। এশিয়ার একটি সুপারমার্কেট এই কাজেরই অংশ হয়ে উঠেছে।

থাইল্যান্ডের ছিয়াংমাই শহরের একটি সুপারমার্কেট সম্প্রতি সিদ্ধান্ত নিয়েছে একবার ব্যবহার করা হয় এরকম প্লাস্টিকের পরিবর্তে তারা কলা গাছের পাতা ব্যবহার করবে। এখন সেখানে শসা, মরিচ মটরশুটি, বেগুনসহ অন্যান্য সবজির আঁটি বাঁধতে কলার পাতা ব্যবহার করা হচ্ছে।

বিজ্ঞাপন

আটি বেঁধে কলার পাতাতেই বারকোডের স্টিকার লাগানো হচ্ছে। এবং সেখানে লেখাও থাকছে কলার পাতা এবং পণ্য কীটনাশকমুক্ত। অনেক মুদিখানার দোকানেও প্লাস্টিকের পরিবর্তে কলার পাতার ব্যবহার জনপ্রিয় হচ্ছে।

পণ্য প্যাকেটজাতকরণে কলার পাতার ব্যবহার বিজ্ঞানের কোন দ্রুত আবিষ্কার নয়। হাওয়াইতে শুকরের কাবাব রাখার ক্ষেত্রে কলার পাতার ব্যবহারের পুরনো ঐতিহ্য রয়েছে। সাউথ এবং সেন্ট্রাল আমেরিকার অন্যান্য দেশেও তামালিস (এক ধরনের খাবার) প্যাকেটজাত করতে কলার পাতার ব্যবহার হয়ে আসছে। এশিয়াতেও স্টিকি রাইস (আঠালো ভাত) প্যাকেট করতে কলার পাতার ব্যবহার করা হয়। 

পারফেক্ট হোমস ছিয়াংমাই তাদের ফেসবুকে পণ্য প্যাকেট করতে কলার পাতার এই ব্যবহারে পোস্ট দিলে তা ভাইরাল হয়। সুপারমার্কেটটির প্রশংসা করে অনেকেই তাদের অভিনন্দন জানিয়েছেন। ইতোমধ্যে ৩৫ লাখ বার পোস্টটি দেখা হয়েছে এবং ১৭ হাজার বার তা শেয়ার হয়েছে।

অনেকেই জানতে চেয়েছেন কৃষকদের বাজারে কিভাবে এর ব্যবহার বাড়ানো যায়, যেখানে শিশুরা স্ট্র বা নলখাগড়া দিয়ে শাকসবজি বেঁধে থাকে। অনেকেই আবার জানতে চয়েছেন কলার পাতা কোথায় কিনতে পাওয়া যায়।

তবে এর বিপরীত চিত্রও আছে। অনেকে এই পোস্টে মন্তব্য করেছেন এতে করে কলার পাতার সংকট দেখা দেবে। বুদ্ধি খাটিয়ে কিভাবে এর বিকল্প ব্যবস্থা করা যায় তার সুপারিশ করেছেন অনেকে।