চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নিহত পলাশসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে মামলা

বিমান ছিনতাই চেষ্টা

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট বিজি-১৪৭ ছিনতাই চেষ্টার ঘটনায় নিহত পলাশ আহমেদসহ কয়েকজনকে আসামি করে চট্টগ্রামের পতেঙ্গা থানায় মামলা দায়ের করেছে  বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ।

বিজ্ঞাপন

সোমবার রাতে চট্টগ্রাম শাহ আমানত বিমানবন্দরের প্রযুক্তি সহকারি দেবব্রত সরকার মামলাটি দায়ের করেন।

মামলায় নিহত যুবক পলাশসহ অজ্ঞাতনামা আরো কয়েকজনকে ছিনতাই অভিযোগে আসামি করা হয়েছে। মামলার এজাহারে পলাশ আগ্নেয়াস্ত্র প্রদর্শন করেছে বলে উল্লেখ রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

মামলার বাদী তার এজাহারে বলেছেন, নিহত পলাশ বিমানের ভেতরে পরপর দুটি বিস্ফোরকের বিস্ফোরণ ঘটায়।

রোববার বাংলাদেশ বিমানের বোয়িং-৭৩৭ মডেলের ময়ূরপঙ্খী উড়োজাহাজটি ১৪২ জন যাত্রী ও পাঁচজন ক্রু নিয়ে বিজি-১৪৭ ফ্লাইটটি ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম হয়ে দুবাই যাচ্ছিল। উড়োজাহাজটি  ছিনতাইয়ের কবলে পরার প্রায় তিন ঘণ্টা পর সেনা কমান্ডোদের অভিযানে একজনকে আটক করার মধ্য দিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। 

আহত অবস্থায় আটক ওই ছিনতাই চেষ্টাকারী পরে নিহত হয় বলে তাৎক্ষণিক এক সাংবাদিক সম্মেলনে জানান সিভিল এভিয়েশন চেয়ারম্যান।

প্রাথমিকভাবে ওই ছিনতাইকারীর নাম মাহাদী বলে জানা গেলেও্র পরে তার পরিচয় মেলে। উড়োজাহাজ ছিনতাই চেষ্টায় কমান্ডো অভিযানে নিহত সন্ত্রাসী পলাশ র‍্যাবের অপরাধী ডাটাবেজের অন্তর্ভুক্ত। সে নারায়ণগঞ্জ জেলার সোনারগাঁও উপজেলার পিরিজপুরের দুধঘাটা ইউনিয়নের বাসিন্দা। তার বাবার নাম পিয়ার জাহান সরদার।