চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

দুই ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ কোহলিদের

অস্ট্রেলিয়ার পর নিউজিল্যান্ডে অপ্রতিরোধ্য ভারত

দশ বছর পর কিউইদের মাটিতে আবারও সিরিজ জয় পেল ভারত। বে ওভালে একপেশে ম্যাচে নিউজিল্যান্ডকে গুঁড়িয়ে সিরিজ নিশ্চিত করেছে বিরাট কোহলির দল। তৃতীয় ওয়ানডেতে ৭ উইকেটে জিতেছে সফরকারীরা। পাঁচ ম্যাচের সিরিজ দুই ম্যাচ এখনও হাতে।

বিজ্ঞাপন

অস্ট্রেলিয়া সফরের শুরু থেকেই দুর্দান্ত ফর্মে ছিল ভারতীয় দল। নিউজিল্যান্ডের মাটিতেও অপ্রতিরোধ্য। প্রথম দুই ম্যাচের মতো তৃতীয় ম্যাচেও কোনো রকম লড়াই করতে পারেনি স্বাগতিকরা।

টস জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় নিউজিল্যান্ড। এদিন ভারতীয় দলে দুটি পরিবর্তন করা হয়। বিতর্ক শেষে জাতীয় দলে সুযোগ পেয়েই সরাসরি প্রথম একাদশে ঢুকে যান হার্দিক পাণ্ডিয়া। হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটের জন্য ধোনিকে বিশ্রাম দেয়া হয়, তার জায়গায় দলে আসেন দিনেশ কার্তিক।

বিজ্ঞাপন

প্রথমে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি কিউইদের। এদিনও ব্যর্থ হন দুই ওপেনার। গাপটিলদের ব্যর্থতার পর অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন এবং রস টেলর ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করেছিলেন। দলগত ৫৯ রানের মাথায় যুযবেন্দ্র চাহালের বলে দুর্দান্ত ক্যাচ নিয়ে তাকে সাজঘরে ফেরান হার্দিক।

টেলর এবং টম ল্যাথামের জুটিতে প্রতিরোধ না করলে আরও লজ্জায় পড়ত হত নিউজিল্যান্ডকে। দুই মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানের সেঞ্চুরি জুটিতে ভর করে শেষ পর্যন্ত ২৪৩ রানে থামে ইনিংস।

ভারতের হয়ে ৩টি উইকেট নেন মোহাম্মদ সামি। দুটি করে উইকেট নেন ভুবনেশ্বর কুমার, চাহাল এবং হার্দিক পাণ্ডিয়া।

২৪৪ রানের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে খেলতে নেমে শুরুটা আবারও দুর্দান্ত হয় ভারতের। প্রথম উইকেটের জুটিতে ৩৯ রান তোলে তারা। শেখর ধাওয়ানের উইকেট হারানোর পর জুটি বেঁধে ইনিংসের হাল ধরেন কোহলি এবং রোহিত শর্মা। শতরানের জুটি গড়েন তারা। রোহিত ৬২ এবং কোহলি ৬০ রান করেন।

অধিনায়ক ও সহ-অধিনায়ক আউট হওয়ার পর রাইডু এবং কার্তিক জুটি বেঁধে দলের জয় নিশ্চিত করেন। এই জয়ের ফলে দশ বছর পর নিউজিল্যান্ডের মাটিতে সিরিজ জিতল ভারত। সিরিজ জিতেই বিশ্রামের অংশ হিসেবে দেশে ফিরবেন কোহলি। সিরিজের শেষ দুই নিয়মরক্ষার ম্যাচে নেতৃত্ব দেবেন রোহিত শর্মা।