চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ডিজিটাল অপরাধ প্রতিরোধে ফেসবুক কর্তৃপক্ষের সহযোগিতার প্রত্যাশা: তথ্য প্রযুক্তিমন্ত্রী

ডিজিটাল অপরাধ ও ফেসবুকের অপপ্রচার ও গুজব প্রতিরোধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণে ফেসবুক কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা প্রত্যাশা করেছেন ডাক ও টেলিযোগাযোগ এবং তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

বিজ্ঞাপন

ডিজিটাল অপরাধ প্রতিরোধে বিশেষ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে সকল ধরনের ডিজিটাল অপরাধ প্রতিরোধ, দমন, নিয়ন্ত্রণ,মনিটরিং এবং আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ বিষয়ক এক কর্মশালার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।

মঙ্গলবার রাজধানীর বিটিআরসির অডিটরিয়ামে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়, বিটিআরসি এবং ফেসবুক যৌথভাবে এ কর্মশালার আয়োজন করে।

বিজ্ঞাপন

মোস্তাফা জব্বার বলেন, ফেসবুক ব্যবহারকারীদের প্রকৃত পরিচয় শনাক্ত করতে পারলে সমস্যার সমাধান সম্ভব। অপরাধীরা নিজের আসল পরিচয় গোপন রেখে অপরাধ করে থাকে।

অপরাধ নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে মন্ত্রী ফেসবুক আইডিতে মোবাইল নাম্বার সংযোজন এবং ফেসবুক কর্তৃপক্ষ সরকারের সহায়তায় জাতীয় পরিচয়পত্র ভেরিফাই করে ফেসবুক আইডি নিশ্চিত করার প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করেন। এছাড়া গুজব ও অপরাধ প্রবণ কনটেন্টগুলো শনাক্ত করে তাৎক্ষণিক তা প্রত্যাহারেও ফেসবুক ভূমিকা নিতে পারে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, অতীতের যে কোন সময়ের তুলনায় বর্তমানে ফেসবুকের সাথে বাংলাদেশের চমৎকার সম্পর্ক গড়ে উঠেছে। ফেসবুকে অনেক বেশী বাংলা ভাষা ব্যবহৃত হয়। বাংলা কন্টেইনে কিছু সমস্যা পরিলক্ষিত হচ্ছে। তিনি আশা করেন, এ বিষয়ক বিদ্যমান সমস্যা সমাধানে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ কার্যকর উদ্যোগ গ্রহণ করবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের সচিব জুয়েনা আজিজ, ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মোঃ আজিজুল ইসলাম, ফেসবুকের দক্ষিণ এবং মধ্য এশিয়া বিষয়ক হেড অভ কানেক্টিভিটি পলিসি অশ্বিনি রানা, বিটিআরসির চেয়ারম্যান মোঃ জহিরুল হক বক্তৃতা করেন।

বিকালে এ বিষয়ে ফেসবুক কর্তৃপক্ষের সাথে মন্ত্রীর দ্বিপাক্ষিক বৈঠক হওয়ার কথাও রয়েছে।