চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ঠাণ্ডা মাথার দুই খুনি

জামায়াত নেতা আলী আহসান মুহাম্মদ মুজাহিদ ও বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মৃত্যুদণ্ডাদেশ বহাল রেখে আপিল বিভাগের দেওয়া রায় প্রকাশ করা হয়েছে। পূর্ণাঙ্গ রায়ে মুজাহিদ সম্পর্কে বলা হয়েছে, আলবদর নেতা হিসেবে পরিকল্পনা ও ষড়যন্ত্র করে বুদ্ধিজীবীদের অপহরণ পরবর্তী হত্যা ছিলো ঠাণ্ডা মাথায় হত্যাযজ্ঞ। অার সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর অপরাধকে প্রতিহিংসা ও চরম সহিংসতাপূর্ণ বলে উল্লেখ করা হয়েছে রায়ে।

বিজ্ঞাপন

বুদ্ধিজীবী হত্যার দায়ে জামায়াত নেতা আলী আহসান মুহাম্মদ মুজাহিদকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়ে চলতি বছরের ১৬ জুন রায় দেন আপিল বিভাগ। সাড়ে ৩ মাসের মাথায় সুপ্রিম কোর্টের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে প্রকাশ হলো মামলার পূর্ণাঙ্গ রায়।

বিজ্ঞাপন

এতে মুজাহিদ সম্পর্কে বলা হয়, আলবদর নেতা হিসেবে পরিকল্পনা ও ষড়যন্ত্র করে বুদ্ধিজীবীদের অপহরণ পরবর্তী হত্যা ছিলো ঠান্ডা মাথায় হত্যাযজ্ঞ। তার অপরাধকে তুলনা করা হয় হিটলারের গ্যাস চেম্বারের সঙ্গে। বলা হয়, পৃথিবীর মানুষ যেমন জাপানের হিরোশিমা ও নাগাসাকির কথা ভুলতে পারে না, তেমনি বাংলাদেশের মানুষ কখনই ১৯৭১ এর কথা ভুলতে পারবে না।

একই সময় প্রকাশিত হয় সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মামলার পূর্ণাঙ্গ রায়। বলা হয়, আসামীর মানবতাবিরোধী অপরাধ ছিল প্রতিহিংসা ও চরম সহিংসতাপূর্ণ। সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরী ঠাণ্ডা মাথায় অপরাধের পরিকল্পনা করে বাস্তবায়ন করতেন। সাধারণ মানুষকে ধর্মীয় ও রাজনৈতিক কারণেও হত্যা করেছে আসামী। এসব অপরাধের কারণে তার পুরস্কার একমাত্র মৃত্যুদণ্ড।

রায় প্রকাশের পর এটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম বলেন, রায় প্রকাশের দিন থেকেই রিভিউ আবেদনের সময়সীমা শুরু। আর সর্বোচ্চ আদালত চাইলে অবকাশকালীন ছুটির মধ্যেই রিভিউ শুনতে পারবেন। আসামীপক্ষ বলেছে রায়ের পূর্ণাঙ্গ কপি পাওয়ার ১৫ দিনেই মধ্যে রিভিউ আবেদন করা হবে।