চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

উত্তর সিটির আড়াই হাজার কোটি টাকার বাজেট

২০১৮-১৯ অর্থ বছরের জন্য ২ হাজার ৫৬৭ কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা করেছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি)।

বিজ্ঞাপন

সোমবার দুপুরে ডিএনসিসির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে প্যানেল মেয়র ওসমান গণি এ বাজেট ঘোষণা করেন।

এ সময় মেয়র জানান, এ অর্থবছরে নিজস্ব উৎস থেকে আয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ হয়েছে ৮৫৭ কোটি ২০ লাখ টাকা। সরকারি উন্নয়ন অনুদান হিসাবে ২০০ কোটি টাকা এবং সরকারি ও বৈদেশিক সাহায্যপুষ্ট প্রকল্প থেকে প্রায় ১৩০০ কোটি টাকা পাওয়ার কথা রয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এবারের অর্থবছরের বাজেটে উন্নয়ন খাতে সর্বমোট ১৯৬২ কোটি ৮০ লাখ টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে। যা মোট বাজেটের প্রায় ৭৬ শতাংশ।

বাজেটে রাজস্ব খাত থেকে ৮৫৭ কোটি ২০ লাখ টাকা আয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ হয়েছে। এর মধ্যে বড় অংকের রাজস্ব আয় আসবে: কর (হোল্ডিং, পরিচ্ছন্ন, লাইটিং) থেকে ৪০০ কোটি টাকা, সম্পত্তি হস্তান্তর কর থেকে ২০০ কোটি টাকা, ট্রেড লাইসেন্স থেকে ৬০ কোটি টাকা এবং বাজার সালামি থেকে ৫০ কোটি টাকা।

২০১৮-১৯ বাজেটে বেতন, পারিশ্রমিক ভাতা খাতে ব্যয় সবচেয়ে বেশি রেখেছে ডিএনসিসি। এ খাতে ব্যয় রাখা হয়েছে ১৭৫ কোটি টাকা। বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও পানি খাতে ব্যয় ধরা হয়েছে ৫৮ কোটি ৫০ লাখ টাকা। মশক নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রমে ব্যয় ধরা হয়েছে ২১ কোটি টাকা। মেরামত ও রক্ষণাবেক্ষণ বাবদ ৩০ কোটি ২৫ লাখ টাকা ব্যয় করবে ডিএনসিসি।

বাজেট ঘোষণা অনুষ্ঠানে ডিএনসিসির প্রধান নির্বাহী মেসবাহুল ইসলাম, অন্যান্য বিভাগের প্রধান ও ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

ডিএনসিসি ২০১৭-১৮ অর্থবছরের জন্য ২৩৮৪ কোটি ৮০ লাখ টাকার বাজেট ঘোষণা করেছিল। যার সংশোধিত আকার দাঁড়ায় এক হাজার ৬৭৮ কোটি ২১ লাখ টাকা।